বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে | বিসিএস কোচিং খরচ

এখন যারা অনার্স পাশ করেছেন তারা সবাই বিসিএস কোচিং করার জন্য বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে এবং বিসিএস কোচিং খরচ সম্পর্কে প্রশ্ন করে থাকেন। বিসিএস এর জন্য ভালো ভাবে প্রিপারেসন এর জন্য কোচিং সেন্টার গুলো অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা রাখে। যারা একেবারে নতুন বিসিএস এর প্রিপারেসন নিবেন তারা কোথা থেকে কিভাবে পড়া শুরু করবেন এটা বুঝতে পারেন না। তাদের জন্য কোচিং সেন্টার গুলো অনেক বেশি সাহায্য করে থাকে।

বিসিএস কোচিং খরচ  বা বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে এ সম্পর্কে গুগলে অনেকেই খুজে থাকেন। আজকের আর্টিকেলে আপনাদের জানাবো বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে সে সম্পর্কে বিস্তারিত ভাবে। যারা বিসিএস এর জন্য কোচিং করবেন ভাবছেন তারা আর্টিকেল টি পড়তে পারেন।

বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে | বিসিএস কোচিং খরচ
বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে | বিসিএস কোচিং খরচ

 

Table of Contents

বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে?

বর্তমানে কোচিং সেন্টারগুলোতে কোচিং করা অনেকটা খরচ সাপেক্ষ ব্যাপার। বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে এটা নির্ভর করে একান্ত কোচিং সেন্টার এর উপরে। সাধারনত বিসিএস এর কোচিং সেন্টার গুলোতে বর্তমানে ৩০ হাজার থেকে ৫০ হাজার টাকা লাগে

এই আর্টিকেলোগুলো দেখতে পারেন- 

ইংরেজি উচ্চারণ শেখার বই pdf – সহজে উচ্চারণ শিখুন ইংরেজি শব্দের

টিপি লিংক রাউটার দাম – টিপি লিংক রাউটার প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৩

বিসিএস কোচিং খরচঃ

বিসিএস কোচিং খরচ সম্পর্কে জানতে চাইলে আপনাকে কিছু কোচিং সেন্টারের নাম জানতে হবে সবার আগে। কারণ আপনি স্থান ভিত্তিক যদি কোচিং সেন্টারের নাম না জানেন তাহলে আপনি কখনো এর খরচ জানতে পারবেন না। যদি আমি রাজশাহী শহরের কোচিং সেন্টারের তালিকা অনুসারে খরচ উল্লেখ করি তখন দেখব যে প্রতি কোচিং ভিত্তিক ৫-১০ হাজার টাকার পার্থক্য হবে। আমরা এখানে উদাহরণ স্বরুপ শুধু রাজশাহী শহরের কোচিং সেন্টারের খরচ সম্পর্কে তুলে ধরব।

আরো পড়ুনঃ  চতুর্থ শ্রেণীর লেকচার গাইড পিডিএফ – Class 4 Guide Book PDF

রাজশাহী শহরের জনপ্রিয় কোচিং সেন্টারঃ

  1. ওরাকল বিসিএস কোচিং- রাজশাহী শহরের জনপ্রিয় কোচিং সেন্টার হলো ওরাকল বিসিএস কোচিং। এই কোচিং সেন্টারের খরচ সবার হাতের নাগালে। এখন আপনি যদি বিসিএস কোচিং করার জন্য প্রিলিমিনারি এবং লিখিত একবারে কোচিং করতে চান তাহলে সর্বোচ্চ ১০ হাজার- ১৫ হাজার টাকা নিবে ওরাকল বিসিএস কোচিং কর্তৃপক্ষ। তবে কারো কারো কাছ থেকে কিছু টাকা কম নিতে পারেন। যেমন- গরীব মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের কাছ থেকে বরাবরের মতই এরা ছাড় দিয়ে থাকেন।
  2. এম্বিশন প্লাস- রাজশাহী শহরের সবচেয়ে জনপ্রিয় কোচিং সেন্টারের মধ্যে এম্বিশন প্লাস অন্যতম। এরা বিসিএস কোচিং এর জন্য ছাত্রছাত্রীদের কাছ থেকে ৫-১০ হাজার টাকা নিয়ে থাকেন। কম দামে সেবা দেওয়ার ক্ষেত্রে এই কোচিং সজনপ্রিয়।
  3. কনফিডেন্স রাজশাহী শহরে কনফিডেন্স বিসিএস কোচিং সেন্টারের জন্য একটি ভরসার নাম। প্রতি বছর এই কোচিং সেন্টার থেকে অনেক শিক্ষার্থী ক্যাডার হয়ে থাকেন। বিশেষ করে এদের শিক্ষার্থীদের প্রতি আলাদা কেয়ার এবং পরম শ্রদ্ধার সাথে শিক্ষা দেওয়ার জন্য এরা সুনাম বয়ে এনেছে। তাই বিসিএস কোচিং খরচ এর দিক দিয়ে এরা একটু দামী বলা যায়। কনফিডেন্স কোচিং সাধারণত ১৫-২৫ হাজার টাকা এক কালীন নিয়ে থাকে।

এছাড়াও রাজশাহী শহরে অবস্থিত অন্যান্য কোচিং সেন্টারগুলো কম জনপ্রিয় না। বিসিএস কোচিং সেন্টারগুলো সাধারণত শিক্ষার্থীদের বিসিএস প্রিলিমিনারি এবং লিখিত পরীক্ষায় পাশ করার জন্য শিক্ষা দিয়ে থাকে। এজন্য রাজশাহীতে অবস্থিত প্রতি কোচিং সেন্টারভেদে বিসিএস কোচিং খরচ নির্ভর করে।

আরো পড়ুনঃ আমার প্রিয় খেলা অনুচ্ছেদ রচনা – সকল শ্রেণী

ঢাকা শহরের জনপ্রিয় কোচিং সেন্টারঃ

রাজশাহী শহরের মতই ঢাকা শহরেও অনেক জনপ্রিয় কোচিং সেন্টার রয়েছে। আমরা অনেকেই জানি ঢাকা শহরে জীবনমান অনেক উন্নত। তাই সেখানে বিসিএস কোচিং খরচ রাজশাহী শহরের তুলনায় কিছু বেশি পড়তে পারে। ঢাক শহরেও উপরে উল্লিখিত কোচিং সেন্টার রয়েছে। এক কথায় বলতে পারি যে, স্থান, কাল ভেদে বিসিএস কোচিং খরচ নির্ভর করে।

জেলা শহরে সাধারণত খরচ তুলনামূলক অনেক কম হয়। আমরা যদি বিভাগীয় শহরের দিকে তাকাই তাহলে দেখতে পাব যে সেখানে জেলা শহর থেকে অনেক শিক্ষার্থী সেখানে বিসিএস কোচিং করতে যান। তাই বরাবরের মতই বিভাগীয় বা রাজধানী শহরে বিসিএস কোচিং খরচ বেশিই পড়ে যায়। অন্যদিকে বিসিএস কোচিং করার জন্য বিসিএস প্রস্তুতির জন্য কিছু বই কিনতে হবে। তাই সর্বমোট মাসে যদি আপনি ২০ হাজার +/- টাকা খরচ করে থাকেন তাহলে বিভাগীয় বা জেলা শহরে ভালভাবে বিসিএস কোচিং সহ অন্যান্য ব্যয় বিবেচনায় থাকতে পারবেন।

এ ছাড়াও বিভিন্ন ধরনের বই ক্রয় করা ও বিভিন্ন দিকে প্রায় আপনার ২০ হাজার টাকার বেশি খরচ হবে। তাই যদি বিসিএস এর কোচিং সেন্টারে ভর্তি হতে চান কমপক্ষে ৬০ হাজার টাকা হাতে রাখুন। বিভিন্ন কোচিং সেন্টার অনুযায়ী খরচ আরো কম ও হতে পারে। এজন্য আপনি যে কোচিং এ বিসিএস কোচিং করতে চান সেখান থেকে ভালো ভাবে জেনে নিবেন।

শেষকথাঃ

পরিশেষে বলা যায় যে, বিসিএস কোচিং করতে কত টাকা লাগে বা বিসিএস কোচিং খরচ কত হবে এ সম্পর্কে আমি উপরে আলোচনা করেছি। আপনারা যদি একটু মিতব্যয়ী হোন তাহলে বিসিএস কোচিং করতে খরচ কম হবে বলে মনে করি। ধন্যবাদ

About admin

Check Also

বিএম এড (BMED) পাঠ পরিকল্পনা

বিএমএড (BMED) পাঠ পরিকল্পনা পিডিএফ – BMED Lesson Plan With PDF File

বিএম এড (BMED) পাঠ পরিকল্পনা বিএম পাঠ পরিকল্পনার লেয়াউট সহ পিডিএফ ডিজাইন টি পোষ্টের শেষে …