মেয়েদের রুপচর্চা – করার ঘড়োয়া পদ্ধতি ও শরিরের যত্ন

মেয়েদের রুপচর্চা ও শরীরের যত্ন।

সেই আদিম যুগ থেকেই মেয়েদের সৌন্দর্য এর প্রতি যথেষ্ট আকর্ষন লক্ষ করা যায়। বিশেষ করে তাদের নিজেদের রূপ সোন্দর্যের প্রতি। একটা মেয়ের যতই বয়স হয়ে যাক না কেনো সে কখনওই তার রূপ লাবন্য হারাতে চায় না।

চায় সবসময় সুন্দর থাকতে। আর এই সৌন্দর্যকে ধরে রাখতে মেয়েদের রূপচর্চার কোনো বিকল্প নেই। বেশিরভাগ সময়েই খুজে থাকে রুপচর্চা করার নতুন সব আইডিয়া গুলো কে। অনেকেই রুপচর্চা কিভাবে করবেন এ বিষয়ে সঠিক ভাবে জানেন না।

আজকের আর্টিকেলে দেখবো মেয়েদের রুপচর্চা করার সকল উপায় গুলো সম্পর্কে। আমাদের শরিরের বিভিন্ন ত্বকের জন্য নানান উপায় অবলম্বন করে আরো বেশাই আকর্ষণীয় করে তুলতে পারি। এ সম্পর্কে জানতে চাইলে পুরো পোষ্ট টি সম্পুন্ন পড়ার চেষ্টা করুন। অনেকেই গুগলে মেয়েদের রুপচর্চা নিয়ে খুজে থাকেন।

মেয়েদের রুপচর্চা আসলে কি?

মেয়েদের রুপচর্চা বলতে মূলত বোঝায়- আমাদের শরীরের প্রত্যেকটা অংশের যত্ন নেওয়া। রুপচর্চা বলতেই আমরা মনে করি মুখমন্ডল আর চুলের যত্ন নেয়া। কিন্তু রূপচর্চা শুধু মুখমন্ডল আর চুলের মধ্যে সীমাবদ্ধ নয়।আমাদের শরীরের প্রত্যেকটি অংশের যত্ন নেওয়া হলো আসল কথায় রুপচর্চা

মেয়েদের রুপচর্চা কিভাবে করে?

অনেকে মেয়েদের রুপচর্চা বলতেই মনে করেন দামি দামি কতগুলো ক্রিম আর ক্যামিকেল মিশ্রিত প্রোডাক্ট ঘসলেই রুপচর্চা করা হয়। আসলে বিষয়টা মোটেও তেমন কিন্তু না। আপনি সম্পূর্ন ঘরোয়া পদ্ধতিতে আপনার শরীরের যত্ন নিতে পারেন। নিজের ঘরে বসে ঘরোয়া কিছু নিত্য প্রয়োজনীয় ও সহজলভ্য জিনিস দিয়েই রুপচর্চা সম্ভব।মেয়েদের মে

মেয়েদের রূপচর্চা

মেয়েরা সুন্দর থাকতে চাইলেও নিজেদের শরীরের যত্ন একদমই নেই না। যার ফলে অল্প বয়সেই দেখা দেয় ডার্ক সারকেল, চেহাড়া মুড়িয়ে যায়, চুল ঝড়ে যায়। শেষে গিয়ে আমরা ডিপ্রেশনে ভুগতে থাকি। তাই প্রথম থেকে আমাদের রুপচর্চা ও শরীরের যত্নের প্রতি বিশেষভাবে খেয়াল রাখতে হবে।

শরীরের যত্ন – মেয়েদের রুপচর্চা

সুন্দর থাকতে হলে অবশ্যই আগে সুস্থ থাকতে হবে। সুস্থ থাকতে পানির কোনো বিকল্প নেই। রোজ সকালে ঘুম থেকে উঠে সবার আগে এক গ্লাস পানি খেয়ে নিতে হবে। এর পরে বাকি কাজ। একজন প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের দৈনিক ৬ থেকে ৮ গ্লাস পানি পান করা উচিত।

পানি খাওয়ার পাশাপাশি রোজ একটু শারিরীক ব্যায়াম করতে হবে। সেটা হতে পারে ইয়োগা,সাতার,সাইকেলিং ইত্যাদি। পাশাপাশি খাবার খেতে হবে পরিমাণ মত । প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় পর্যাপ্ত পরিমানে শাক-সবজি খেতে হবে।

মুখমন্ডলের যত্ন – মেয়েদের রুপচর্চা

এবারে আসি আমাদের মেইন ফোকাস মুখমন্ডলের দিকে। মেয়েরা সবাই চায় আর যাই হোক আমাদের ফেইসটা যেনো সুন্দর থাকে। কোনো দাগ বা পিম্পল না থাকে, ট্যান না পরে। কিন্তু বর্তমানের আবহাওয়া আমাদের শরীরের সিস্টেমগুলোকে পাল্টে ফেলছে।

বাংলা হাদিস – ১০ টি বাংলা অনুবাদ সহিহ হাদিস

যার কারনে আমাদের সুন্দর ত্বক আর সুন্দর থাকছে না। আমরা তো এই আবহাওয়া কে পরিবর্তন করতে পারবো না। কারন এটা সম্পূর্ণই মহান আল্লাহ হাতে। তবে এই সমস্যাগুলো থেকে বাচতেও অবশ্যই কিছু পদ্ধতি অবলম্বন করতে পারবো চলুন সেগুলো জেনে নাওয়া যান।

১- মুখের যত্নে চালের ভুমিকা

মুখের যত্নে চাল অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এটা ত্বককে গভীরভাবে পরিষ্কার করে। ত্বকে থাকা ময়লা,কালো ছোপ ছোপ দাগ দূর করে।
অল্প কিছু চাল ভালোভাবে ধুয়ে সারারাত ভিজিয়ে রাখুন।।সকালে ভিজিয়ে রাখা চাল পানিসহ ব্লেন্ড করে পুরো মুখে লাগিয়ে রাখুন ২০/৩০ মিনিট। সপ্তাহে ২/৩ দিন এভাবে ব্যবহার করলেই অনেক ভালো ফলাফল পাবে।

২- মুখের যত্নে টমেটো

একটা টমেটোর বিচি ফেলে সেটাকে ভালো করে ব্লেন্ড করে ১০/১৫ মিনিট মুখে লাগিয়ে ধুয়ে ফেলুন।সপ্তাহে ২/৩ বার ব্যবহারে আপনার ত্বকের কালো দাগ দূর হবে ইন শা আল্লাহ।

৩- আলু দিয়ে মেয়েদের রুপচর্চা

আমাদের অনেকে খাবারের পছন্দের তালিকায় আলু থাকলেও এটা যে রূপচর্চায় ও ব্যবহার করা হয় সেটা আমরা অনেকেই যানিনা।আলু ধুয়ে ভালোভাবে ব্লেন্ড করে মুখে লাগিয়ে রাখুন কিছু সময়।আপনার ডার্কসার্কেল দূর হবে।

৪- মুশুরি ডাল দিয়ে মেয়েদের রুপচর্চা

মুশুরি ডাল ভালোভাবে ধুয়ে ব্লেন্ড করে মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুখানো পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। এর পরে ধুয়ে ফেলুন। মুশুরি ডাল ত্বককে গভীর থেকে ফর্সা করতে সাহায্য করে।

৫- শসা দিয়ে মেয়েদের রুপচর্চা

একটি শসা কিছুক্ষন নর্মাল ফ্রিজে রাখুন৷ এরপরে সেটাকে ভালোভাবে ধুয়ে ফালি ফালি করে কেটে চোখে মুখে লাগিয়ে রাখুন কিছুক্ষন। আপনার ক্লান্তি/অবসাদ দূর হয়ে যাবে। শসা চোখের নিচের কালো দাগ দূর করতে সাহায্য করে।

মেয়েদের চুলের যত্ন

এবার আসা যাক চুলের যত্নে দিকে। প্রতিদিনের ধুলো/ময়লাতে আমাদের চুল রুক্ষ প্রানহীন হয়ে যায়। একসময় ঝরতে শুরু করে। অকালে সাদা হয়ে যায়।চুলকে অকালে ঝরে যাওয়া আর সাদা হওয়া থেকে বাঁচাতে নিয়মিত চুলের যত্ন করতে হবে।

১- চুলের যত্নে তেলের ভুমিকা

অনেক মেয়েই চুলে তেল দিতে চায় না। কিন্তু এই তেলই কিন্তু চুলের খাবার। মানুষ যেমন ভাত না খেয়ে বাঁচতে পারে না। তেমনি তেল ছাড়াও চুল নিষ্প্রান হয়ে যায়। তাই আমাদের উচিৎ সপ্তাহে অন্তত একদিন মাথায় ভালোভাবে তেল দাওয়া। তেল দাওয়ারও কিছু নিয়মকানুন রয়েছে।

তেলটাকে একটু উষ্ণ গরম করে মাথার তালুতে ঘসে ঘসে লাগাতে হবে। এতে নতুন চুল গজায় এবং চুল গোড়া থেকে মজবুত হয়।

২- এলোভেরা দিয়ে মেয়েদের চুলের যত্ন

এলোভেরা চুলের গোড়া মজবুদ করে চুলকে করে ঘনো,কালো,ঝলমলে। গাছ থেকে এলোভেরার পাতা থেকে জেল সংগ্রহ করে চুলে লাগাতে পারেন।
আবার বাজার থেকে কিনেও ব্যবহার করা যেতে পারে। মেয়েদের রুপচর্চার ক্ষেত্রে এটি বেশ কার্যকরী ভুমিকা বহন করে।

৩- মেহেদি পাতা

চুল অনুযায়ী মেহেদি পাতা সাথে ২ টা আমলকি ও ৪/৫ টা জবা ফুলের পাতা বেটে পুরো চুলে লাগিয়ে রাখুন ১/১.৩০ ঘন্টা। এরপরে চুল শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। মেহেদি পাতা দাওয়ার পরে চুল একটু খসকসে হয়ে যায়। তাতে ভয়ের কিছু নেই। চুল কন্ডিশনার দিয়ে ধুয়ে ফেললেই ঠিক হয়ে যাবে।

হাত ও পায়ের মেয়েদের রুপচর্চা

হাত পায়ের যত্নের ব্যাপারে অনেক উদাসীন থাকি। কিন্তু শরীরের অন্যান্য অংশের মত হাত পায়ের যত্নে নেয়া অনেক জরুরি। বাহির থেকে ফিরলেই হাত ও পা ভালোভাবে পরিষ্কার করতে হবে। নিয়ম করে নখ কাটতে হবে ও নখের যত্ন করতে হবে। মেয়েদের রুপচর্চার জন্য এটা অনেক বেশী জরুরি।

ইংরেজি শেখার সহজ উপায় – ইংরেজির শেখার ধাপ গুলো জেনে নিন

প্রয়োজনে এভাবে করে আপনি রুপচর্চা করতে পারেন – একটি বড় বাটিতে কিছুটা উষ্ণ গরম পানি নিতে হবে। তার মধ্যে কিছুটা লবন ভালোভাবে মেশাতে হবে। এরপরে একটা লেবুর পুরোটা রস পানির মধ্যে দিতে হবে।সাথে সামান্য শ্যাম্পু ও ১ চামচ বেকিং সোডা দিয়ে পুরো মিশ্রণটি ভালোভাবে মিশিয়ে নিতে হবে।

এবার ওই পানির মধ্যে হাত পা ভিজিয়ে রাখতে হবে কিছুক্ষন। এরপরে একটা ব্রাশ দিয়ে আস্তে আস্তে ঘষা দিলেও হাত পায়ের মধ্যে থাকা সকল ময়লা উঠে যাবে। নখ ঝকঝকে হয়ে যাবে। সপ্তাহে একদিন না হলে অন্তত মাসে একদিন এভাবে আপনার হাত পায়ের যত্ন নিতে হবে।

শেষ কথা

সৌন্দর্য হলো পরিচর্যার জিনিস। যত পরিচর্যা করবেন ততই বৃদ্ধি পাবে।মেয়েদের জন্য রুপচর্চা করা অনেক বেশী গুরুত্বপূর্ণ। অন্যের কাছে নিজেকে আকর্ষনীয় করে তুলতে এর ভুমিকা অপরিসীম। আমাদের আর্টিকেল টু এতক্ষন ধরে পড়ার জন্য অনেক অনেক ধন্যবাদ।

About admin

Check Also

অতিরিক্ত ঘুমের ঔষধ খেলে কী হয়?

অতিরিক্ত ঘুমের ঔষধ খেলে কী হয়?

যদি কেউ না জানেন যে অতিরিক্ত ঘুমের ঔষধ খেলে কী হয়? তাহলে এই পোস্ট আপনার …